১৪ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার

করোনা রোগীর সেবায় মনে পড়ে পারভেজ আকন বিপ্লব ভাইকে

আপডেট: এপ্রিল ২৯, ২০২১

নিজস্ব প্রতিনিধি ॥ বরিশাল জিলা স্কুলের ছাত্র ছিলাম। ছাত্র অবস্থায় সেই ১৯৯৭ সনে বিএনপির মিছিল মিটিংএ বড়দের সাথে যেতাম। যেতে যেতে পরিচয় হল তখনকার বরিশাল জেলা ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক পারভেজ আকন বিপ্লব এর সাথে। সেই থেকেই তার হাত ধরে রাজপথে হাটা শুরু আমার।

 

২০০১ সালে বিএনপি ক্ষমতায় আসে আমিও স্কুল জিবন শেষ করে বরিশাল কলেজে একাদশ শ্রেনিতে ভর্তি হই। তখন জেলা ছাত্রদলের কমিটি বিলুপ্ত করে। পরের কমিটিতে বিপ্লব জেলা ছাত্রদলের সাধারন সম্পাদক। এরপর ২০০২ সালে বরিশাল কলেজ ছাত্র সংসদ নির্বাচনে বিপ্লব বরিশাল কলেজের ভিপি এবং আমি হই সমাজ সেবা সম্পাদক এবং কলেজ ছাত্রদলের সহ সভাপতি।

 

ক্ষমতা থেকে বিদায় নিল বিএনপি। আসলো কেয়ারটেকার সরকার। আবার শুরু হল আন্দোলন সংগ্রাম। ২০০৯ সালে আওয়ামীলীগ সরকার গঠন করার পর থেকে বহু হামলা মামলার শিকার হয়েছি। অর্থনৈতিক দিক দিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছি। নিজ বাবার হাজার হাজার টাকা ব্যয় করেছি মামলার পিছনে, পুলিশের পেছনে।

 

এভাবে মাসের পর মাস চলতে থাকে। পরে ছাত্রদল থেকে বিদায় নেই একটা সময়। ২০১৭ সালে বরিশাল জেলা যুবদলের কমিটি গঠন হয় সেই কমিটিতে পারভেজ আকন বিপ্লবকে করা হয় সভাপতি। সেই কমিটিতে আমাকে করা হয় যুগ্ম সাধারন সম্পাদক।

 

২০২০ এর মার্চ এর শুরু থেকে পৃথিবীতে করোনা ভাইরাস শুরু হয়। সরকার লকডাউন ঘোষণা করে। ঠিক সেই সময় পারভেজ আকন বিপ্লব অসহায় মানুষের কথা চিন্তা করে ১টি সংগঠন তৈরি করে যার নাম দেয়া হয় “হিউমিনিটি ভলান্টিয়ার্স টিম”। আমাদের ৯জন সদস্য নিয়ে পথচলা শুরু করেন।

 

বিপ্লব ভাই তখন করোনা আক্রান্ত রোগীর বাসায় বাসায় খাবার এবং প্রয়োজনীয় ওষুধপত্র আমাদের মাধ্যমে পৌছে দিতেন। এরকম করে চলতে থাকে আমাদের মানব সেবা। ২০২১ সনের প্রথম দিকে আমাদের জিবনে নেমে আসে শোকের ছায়া।

 

হঠাৎ করে বিপ্লব ভাইয়ের মৃত্যুতে আমরা ভেংগে পড়ি। কোথায় পাব টাকা? কোথায় পাব খাবার সামগ্রী? কোথায় পাব অক্সিজেন? কে দেবে টাকা আমাদের। যাই হোক শোকে আমরা বেশকিছু দিন কাতর ছিলাম। আবার আল্লাহর রহমতে আমরা কিছু টাকা কালেকশন করে সবাই নিজেরা কিছু পকেট থেকে দিয়ে বিপ্লব ভাই স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা রেখে শুরু করি করোনা রোগিকে অক্সিজেন সাপোর্ট দেয়া।

 

৯জন সদস্যের ভিতরে আমরা ৪জন সক্রিয়। আমি উলফত রানা রুবেল, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক বরিশাল জেলা যুবদল, আলি হায়দার সহ সাধারন সম্পাদক জেলা যুবদল, মশিউল আলম পলাশ যুগ্ম সাধারন সম্পাদক জেলা যুবদল, মেহেদি হাসান পরিবেশ সম্পাদক জেলা যুবদল।

 

সবার কাছে দোয়া কামনা করছি। আমরা যেন করোনা রোগীদের মানব সেবা অব্যাহত রাখতে পারি।

165 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন